June 1, 2020, 12:29 pm

শিরোনাম :
রাজাপুরে গ্রামে এসে ঢাবি শিক্ষার্থীর লঙ্কাকান্ড,আতঙ্কে এলাকাবাসী ! করোনাভাইরাস মোকাবেলায় সারা দেশকে লাল, সবুজ ও হলুদ জোনে ভাগ করা হবে বলে-স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালিক স্বপন তাহিরপুরে আহত সাংবাদিকের মামলা নেয়নি থানা পুলিশ: প্রতিবাদে সাংবাদিকদের মানববন্ধন বিক্ষোভে অংশ নেয়া নিউইয়র্ক সিটি মেয়র বিল ডি ব্ল্যাসিওর মেয়ে গ্রেফতার হয়েছেন ইরানে ভালোবাসার মানুষকে বিয়ের অপরাধে ১৪ বছর বয়সী মেয়েকে হত্যা করলেন বাবা বাবা-মাকে ছেড়ে আলাদা সংসার পাতার চাপ দিলে স্ত্রীকে ডিভোর্স দেয়া যাবে বলে মন্তব্য করেছেন ভারতের কেরালা রাজ্যের হাইকোর্ট গলাচিপায় ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে বাল্যবিবাহে সহযোগীতার অভিযোগ মহামারী মরন ব্যাধী করোনায় দেশে আরও ২২ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ২৩৮১ খাদ্য উৎপাদনের বর্তমান ধারা আরও বৃদ্ধি করতে সব ধরনের প্রচেষ্টা চলছে-কৃষিমন্ত্রী ড. মো: আব্দুর রাজ্জাক এমপি জামালপুরে চীনাবাদামের মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত

শীঘ্রই আগুনের গোলা হয়ে উঠবে পৃথিবী, স্টিফেন হকিং

Spread the love

শীঘ্রই আগুনের গোলা হয়ে উঠবে পৃথিবী, স্টিফেন হকিং

ডিটেকটিভ নিউজ ডেস্ক      

বিশিষ্ট ইংরেজ তাত্ত্বিক, পদার্থবিজ্ঞানী এবং গণিতজ্ঞ স্টিফেন হকিং’এর একটি বক্তব্যকে ঘিরে আলোড়ন দেখা দিয়েছে সংবাদমাধ্যম থেকে সোশ্যাল মিডিয়ায়। স্টিফেন হকিং জানিয়েছেন, আগামী ৬শ’ বছরের মধ্যেই ফায়ারবল বা আগুনের গোলায় পরিণত হবে এই পৃথিবী৷ জনসংখ্যা বৃদ্ধি এবং শক্তির ব্যয়ের জন্যই এমনটা ঘটবে বলে চীনের Tencent WE Summitএ দেয়া বক্তব্যে বলেন বিশ্ববিখ্যাত এই বিজ্ঞানী৷  সেখানে তিনি এটাও জানান, মানব অস্তিত্ব সঙ্কটের মুখে রয়েছে৷ আমাদের টিকে থাকতে হলে এমন এক স্থানে যেতে হবে যেখানে এর আগে কেউ যায়নি৷
.

বিজ্ঞানীদের বিশ্বাস, মহাকাশে সৌরজগতের নিকটতম স্থান Alpha Centauri’তেই এমন গ্রহ রয়েছে যা ঠিক পৃথিবীর মতোই বাসযোগ্য হয়ে উঠতে পারে মানবজাতির কাছে৷ হকিং ন্যানোক্র্যাফ্ট নামে এমন এক স্পেসক্র্যাফ্টের কথা বলেছেন, যা মঙ্গলগ্রহে পৌঁছে দেবে এক ঘণ্টারও কম সময়ে৷ প্লুটোতে পৌঁছাতে সময় লাগবে একদিনের মতো, অন্যদিকে ২০ বছর সময় লাগবে Alpha Centauri’তে পৌঁছাতে৷

উল্লেখ্য, এরই মধ্যে বোরিস্কা নামের এক রাশিয়ান তরুণের বক্তব্যে রীতিমতো সাড়া পড়ে গিয়েছে৷ তার দাবি অনুযায়ী, সে পৃথিবীতে জন্ম নেওয়ার আগে মঙ্গল গ্রহের বাসিন্দা ছিল৷ অতীতে পরমাণু অস্ত্রের লড়াইয়ের ফলে বসবাসের অনুপযোগী হয়ে যায় মঙ্গল। শুধু তাই নয়, সেই তরুণের মতে মঙ্গলের বাসিন্দাদের উচ্চতা ছিল নাকি ৭ ফুট৷ মাটির নীচেই বাস তাদের৷ মানুষের মতো অক্সিজেন নয়, বরং কার্বন ডাই অক্সাইডেই শ্বাস-প্রশ্বাস পর্ব চলে তাদের!

বোরিস্কার মতে, ৩৫ বছরের পর মঙ্গলের বাসিন্দাদের বয়স নাকি আর বাড়েনা। এছাড়া প্রযুক্তির দিক থেকেও তারা খুবই এগিয়ে। এভাবেই লাল গ্রহটির বিভিন্ন বর্ণনা দিয়েছে রাশিয়ার এই তরুণ৷ স্কুলের ছাত্র বোরিস্কা আরও জানায়, প্রাচীন মিশরের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক ছিল মঙ্গলবাসীদের৷ তখন পাইলট হিসেবে সে একবার পৃথিবীতে এসেছিল৷

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ