December 8, 2019, 4:20 pm

শিরোনাম :
হোমিওপ্যাথিতে হেপাটাইটিস চিকিৎসা স্ত্রী ও দুই শিশুসন্তান কে হত্যার পর রংপুরে স্বামীর আত্মহত্যার চেষ্টা পৈত্রিক ভিটা থেকে উচ্ছেদ না করতে প্রধানন্ত্রীর নিকট আকুল আবেদন বগুড়ার শিবগঞ্জে মহাস্থানগড় গ্রামের বাসিন্দাদের মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানির অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন মোরেলগঞ্জে প্রভাষকের স্ত্রী’র ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার জামাত-শিবিড়ের ধর্মের অপব্যাখ্যা রোধে শিক্ষার্থীদের সজাগ থাকতে হবে – বকুল এমপি চিলমারীতে মহানবী (সাঃ) কে নিয়ে কটুক্তিকারী যুবককে গ্রেফতারসহ ফাঁসির দাবিতে এলাকায় উত্তেজনা কলাপাড়ায় হামলায় মটর সাইকেল চালক মেনহাজ আহত চিলমারীতে মহানবী (সাঃ) কে নিয়ে কটুক্তিকারী যুবকের বিরুদ্ধে মামলা পায়রা তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে চাইনিজ শ্রমিকের মুত্যু সার্ক ভুক্ত দেশগুলো কৃষিতে ভালো করছে-কৃষি মন্ত্রী ড. মোঃ আব্দুর রাজ্জাক এমপি

হাইকোর্টে মিন্নির জামিন আবেদনের শুনানি কাল

Spread the love

হাইকোর্টে মিন্নির জামিন আবেদনের শুনানি কাল

ডিটেকটিভ নিউজ ডেস্ক

 

বরগুনার আলোচিত রিফাত শরীফ হত্যা মামলার আসামি তার স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নির জামিন চেয়ে হাইকোর্টে করা আবেদনের ওপর শুনানির জন্য আগামীকাল বৃহস্পতিবার দিন ঠিক হয়েছে। বিচারপতি শেখ মো. জাকির হোসেন ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের বেঞ্চে গতকাল মঙ্গলবার জামিনের আবেদনটি শুনানির জন্য উঠলে আদালত ‘বিস্তারিত শুনানি’র কথা বলে দিন নির্ধারণ করে। আদালতে জামিন আবেদনের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী জেড আই খান পান্না। সঙ্গে ছিলেন আইনজীবী এম মাইনুল ইসলাম ও মাক্কিয়া ফাতেমা ইসলাম। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল রেজাউল করিম। পরে আইনজীবী জেড আই খান পান্না সাংবাদিকদের বলেন, আবেদনটি বিস্তারিত শুনবেন বলে বৃহস্পতিবার শুনানির জন্য রেখেছেন আদালত। বৃহস্পতিবার শুনানির সময় নির্ধারণ করে দেওয়ার জন্য বললে আদালত বলেছে কার্যতালিকায় আসবে। গতকাল মঙ্গলবার মিন্নির জামিনের আবেদনটি শুনানির জন্য কার্যতালিকার ৫৩ ক্রমিকে ছিল। এদিন মিন্নির বাবা মোজাম্মেল হোসেন কিশোরও আদালতে উপস্থিত ছিলেন। নারী, অসুস্থতা ছাড়াও ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী সাক্ষি, এসব যুক্তি তুলে ধলে জামিন আবেদনটি করা হয়। আইনজীবী জেড আই খান পান্না সাংবাদিকদের বলেছিলেন, ফৌজদারি কার্যবিধির ৪৯৮ ধারায় তার জামিন পাওয়ার অধিকার আছে। তিনি এ ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী সাক্ষী। ষড়যন্ত্র করে তাকে গ্রেফতার ও আসামি করা হয়েছে। গত ২৬ জুন রিফাতকে বরগুনার রাস্তায় প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা করা হয়। সে সময় স্বামীকে বাঁচাতে মিন্নির চেষ্টার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে সারাদেশে আলোচনার সৃষ্টি হয়। পরদিন রিফাত শরীফের বাবা আবদুল হালিম দুলাল শরীফ ১২ জনকে আসামি করে একটি মামলা করেন; তাতে প্রধান সাক্ষী করা হয়েছিল মিন্নিকে। সম্প্রতি মিন্নির শ্বশুর তার ছেলের হত্যাকাণ্ডে পত্রবধূর জড়িত থাকার অভিযোগ তুলে সংবাদ সম্মেলন করলে আলোচনা নতুন দিকে মোড় নেয়। গত ১৬ জুলাই মিন্নিকে বরগুনার পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে ডেকে নিয়ে দিনভর জিজ্ঞাসাবাদের পর এ মামলায় তাকে গ্রেফতার দেখানো হয়। পরদিন আদালতে হাজির করা হলে বিচারক মিন্নিকে পাঁচ দিনের রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের অনুমতি দেন। রিমান্ডের তৃতীয় দিন শেষে মিন্নিকে আদালতে হাজির করা হলে সেখানে তিনি স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন বলে পুলিশ জানায়। তবে বরগুনা সরকারি কলেজের এই স্নাতকের ছাত্রী ইতোমধ্যে জবানবন্দি প্রত্যাহারের আবেদন করেছেন জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতে। তার বাবার অভিযোগ, নির্যাতন করে ও ভয়ভীতি দেখিয়ে মিন্নিকে ‘স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিতে বাধ্য করেছে’ পুলিশ। এর পেছনে স্থানীয় প্রভাবশালী রাজনীতিবিদদের হাত আছে বলেও তার দাবি। বরগুনার জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালত এবং জেলা ও দয়েরা জজ আদালতে মিন্নির জামিন আবেদন নাকচ হয়ে যাওয়ার পর হাই কোর্টের দ্বারস্থ হন তার আইনজীবীরা।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ