April 18, 2019, 1:02 am

শিরোনাম :
তিন উপায়ে চোখ রক্ষা করুন স্মার্টফোন থেকে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বারবার বিকৃত হয়েছে: রেলমন্ত্রী মুজিবনগর দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা আগামী সপ্তাহ থেকে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বয়ে যেতে পারে তাপপ্রবাহ নুসরাতের খুনিদের আইনি সহায়তা না দেওয়ার ঘোষণা ফেনীর আইনজীবীদের রাজনীতিবিদদের ব্যর্থতায় আক্ষেপ ঝরলো ফখরুলের কণ্ঠে জাহালমের কারভোগের পেছনে জড়িতদের দেখা হবে: হাইকোর্ট ভবন ভাঙতে সময়ের আবেদন প্রত্যাহারে বিজিএমইএর সভাপতিকে নোটিশ দেশে শিশু মৃত্যুর হার ৭৫ শতাংশ কমেছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী তিতাসের ২২ খাতে দুর্নীতি চিহ্নিত করে মন্ত্রণালয়ে প্রতিবেদন দিয়েছে দুদুক
তাড়াশঃ সিরাজগঞ্জের তাড়াশে মহাসড়ক সংস্কার না হওয়ায় ভোগান্তি চরমে ছবিঃ মোঃ শাকিল আহমেদ

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে মহাসড়ক সংস্কার না হওয়ায় ভোগান্তি চরমে

Spread the love

মোঃ শাকিল আহমেদ,সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধিঃ

তাড়াশঃ সিরাজগঞ্জের তাড়াশে মহাসড়ক সংস্কার না হওয়ায় ভোগান্তি চরমে   ছবিঃ মোঃ শাকিল আহমেদ

সংস্কারের অভাবে সিরাজগঞ্জের হাটিকুমরুল-বনপাড়া মহাসড়কের  প্রায় ৯ কিলোমিটার সড়ক সামান্য বৃষ্টিতেই খানাখন্দে পরিণত হয়। ফলে যাত্রী ও মালবাহী পরিবহণে চরম ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে।এদিকে, সংস্কার বিহীন ওই মহাসড়কে দুর্ঘটনার আশংকার মধ্যেই প্রতিদিন শত শত যানবাহন চলাচল করলেও দেখার কেউ নেই।জানা গেছেরাজধানীর ঢাকার সাথে উত্তরাঞ্চলের বিভাগীয় শহর রাজশাহীজেলা শহর চাপাই নবাবগঞ্জনওগাঁনাটোর ও দক্ষিণাঞ্চলের কুষ্টিয়াঝিনাইদহ ও চুয়াডাঙ্গার যাতায়াতের গুরুত্বপুর্ণ মহাসড়ক হাটিকুমরুল-বনপাড়া ।মূলত: মহাসড়কটির বেশিরভাগ অংশ সংস্কার করা হলেও সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার খালকুলা থেকে নাটোরের গুরুদাসপুর উপজেলার কাছিকাটা টোল প্লাজা পর্যন্ত প্রায় ৯-১০ কিলোমিটার মহাসড়কের সংস্কার কাজ করা হয়নি।আর দিনের পর দিন মহাসড়কের সংস্কার বিহীন ওই এলাকায় যানবাহন চালাতে বিড়ম্বনায় পড়তে হচ্ছে চালকদের এবং চরম ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে যাত্রীদেরকে।তাড়াশের মহিষলুটি এলাকার আব্দুস সালামছাবেদ আলীসহ একাধিক ব্যক্তি জানানমহাসড়কের ওই ৯-১০ কিলোমিটার এলাকায় মাঝে মাঝে খানা খন্দের সৃষ্টি হয়েছে। আর সামান্য বৃষ্টিতে খানা খন্দে পানি জমে কাঁদায় পরিণত  হওয়ায় যান চলাচলে ধীরগতির পাশাপাশি যাত্রীদের ভোগান্তিসহ  যানবাহনের যন্ত্রাংশের ক্ষতি হচ্ছে এমনটি জানান মহাসড়কে চলাচলকারী চালক মানিক মিঞা (৪৫)।এছাড়া মহিষলুটি বাজারের পূর্ব পাশে সৃষ্ট হওয়া বিশালকারের গর্তটি যাত্রীদের জন্য মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে এমনটি জানান হামকুড়িয়া গ্রামের ফিরোজ হোসেন (৩৫)।তাড়াশ উপজেলার নওগাঁ ইউপি চেয়ারম্যান মো. মিজানুর রহমান মজুন বলেনমহাসড়কের তাড়াশ অংশে খানা-খন্দ আর গর্তের কারণে মাঝে মাঝেই তীব্র যানজটেরও সৃষ্টি হয়। অনেক সময় খালকুলা থেকে মহিষলুটি বাজার পর্যন্ত যানবাহনের দীর্ঘ লাইন পড়ে যাওয়ায় যাত্রীদের ঘন্টার পর ঘন্টা অপেক্ষা করতে হয়।এ প্রসঙ্গে সিরাজগঞ্জ সড়ক ও জনপথ বিভাগের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী মো. আনোয়ার পারভেজ জানানহাটিকুমরুল গোলচত্বর থেকে কাছিকাটা টোল প্লাজা পর্যন্ত ২৫ কিলোমিটার মহাসড়ক আমাদের সিরাজগঞ্জ সওজের আওতায় রয়েছে। ইতিমধ্যে এ সড়কের ১৬ কিলোমিটার সংস্কার করা হয়েছে।তিনি আরো জানানপ্রিয়োডিক মেইনটেইনেন্স প্রোগাম (পিএমপি) আওতায় এই সড়ক সংস্কারের জন্য প্রস্তাবনা দেয়া হয়েছিল। কিন্তু প্রকল্পের প্রস্তাবনা ফিরে এসেছে। আবার ডিজাইন করে পাঠাতে বলা হয়েছে। সেই লক্ষ্যে আমাদের সার্ভে কাজ চলছে। তবে এই অর্থ বছরে এই প্রকল্পটি অনুমোদিত হওয়ার সম্ভাবনা নেই। আগামী অর্থ বছরে প্রকল্পের অনুমোদন হলে এ মহাসড়কের সংস্কার বিহীন ৯ কিলোমিটার সংস্কার কার্যক্রম শুরু হবে।তবে মহাসড়কে চলাচলকারী একাধিক চালক ও যাত্রীরা জানানআগামী ঈদের পুর্বেই মহাসড়কটির সংস্কার না হলে ঈদের আগেই বাড়ি ফেরা যাত্রীদের ও পরিবহণের ভোগান্তি চরমে উঠেবে।

প্রাইভেট ডিটেকটিভ/ ১৩ এপ্রিল ২০১৯/ইকবাল

 

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ