February 19, 2020, 9:54 pm

শিরোনাম :
লামায় উপজেলা পরিষদের মাসিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে পত্নীতলায় সরকারী কর্মচারীর বিরুদ্ধে জমি দখলের অভিযোগ যশোর-৬ কেশবপুর আসনে উপ নির্বাচনে আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী শাহিন চাকলাদারের বিশাল কর্মী সমাবেশে অনুষ্ঠিত কেশবপুর সংসদীয় উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী শাহীন চাকলাদারের বিশাল কর্মীসভা অনুষ্ঠিত সুন্দরগঞ্জে গৃহবধূর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার গণতান্ত্রিক উপায়ে দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন চৌদ্দগ্রামের বিএনপির সভাপতি কামরুল হুদা, সম্পাদক ইঞ্জিঃ শাহ আলম তাহিরপুরে মুজিববর্ষ উদযাপন উপলক্ষে হিজল করচের চারা রোপন যশোরে ভ্রণ হত্যার অভিযোগে স্বামী সহ ৪জনের বিরুদ্ধে মামলা জামালগঞ্জে একই কর্মমস্থলে ৩০বছর ধরে ওয়ার্ডবয় করেন অর্থোপেডিক বিশেষজ্ঞর কাজ শার্শা উপজেলা প্রশাসনের সৎ ও কর্মদক্ষ কর্মকর্তা খোরশেদ আলম চৌধুরী তরুণদের আইকন

সাদ্দামের মেয়েকে ফিরিয়ে দিতে জর্ডানকে ইরাকের চাপ

Spread the love

সাদ্দামের মেয়েকে ফিরিয়ে দিতে জর্ডানকে ইরাকের চাপ

ডিটেকটিভ আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ইরাকের সাবেক প্রেসিডেন্ট সাদ্দাম হোসেনের মেয়ে রাঘাদ সাদ্দাম হোসেনকে ফিরিয়ে দেওয়ার জন্য জর্ডানকে চাপ দিচ্ছে বাগদাদ। জর্ডানে অবস্থানরত যে কয়জন ইরাকিকে ফেরত দেওয়ার জন্য চাপ দিচ্ছে ইরাকি পার্লামেন্ট, তাদের মধ্যে এই বিরোধী দলীয় নেতা রয়েছেন। ‘ওকাজ’ নামে সৌদি আরবের একটি পত্রিকার উদ্ধৃতি দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম মিডলইস্ট মনিটর। ইরাকের সরকারি সূত্র ওই পত্রিকাকে জানিয়েছে, পার্লামেন্টে রাজনৈতিক ব্লক হিসেবে সংকটে পড়েছেন ইরাকি প্রধানমন্ত্রী আদেল আবদুল মাহদি। জর্ডানে অবস্থানরত সাবেক প্রেসিডেন্ট সাদ্দাম হোসেনের মেয়ে রাঘাদসহ বিরোধী দলীয় কয়েকজন রাজনৈতিক নেতাকে দেশে ফিরিয়ে আনতে প্রধানমন্ত্রীকে চাপ দিচ্ছেন তারা। জর্ডানে বসবাসরত সাদ্দামের পঞ্চম মেয়ে ও অন্য ইরাকিদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদে অর্থায়ন করার অভিযোগ করছে ইরাক সরকার।

ওকাজের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জর্ডান এটাকে দুই দেশের অর্থনৈতিক সহযোগিতা ও বাণিজ্য বাধাগ্রস্ত করার পদক্ষেপ হিসেবে দেখছে। বাগদাদের চাওয়া ব্যক্তিদের আত্মসমর্পণ করানোর জন্য সরকারি প্রচেষ্টাকে ‘ব্ল্যাকমেইল’ বা হুমকি হিসেবে নিয়েছে তারা। এরইমধ্যে ‘রাজনৈতিক সার্বভৌমত্বকে লক্ষ্যবস্তু করে এমন রাজনৈতিক ব্ল্যাকমেইল প্রচেষ্টা প্রত্যাখ্যান’ করেছে জর্ডান।

জর্ডানের সরকারি সূত্রের বরাত দিয়ে ওই পত্রিকা বলছে, ‘জর্ডানে প্রায় পাঁচ লাখ ইরাকি থাকার পরও মাথা নত করবে না আম্মান।’

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইরাকের পার্লামেন্টের ওই রাজনৈতিক পক্ষ চাপ দিয়ে জর্ডানে বসবাসরত ইরাকিদের ইস্যুটিকে দু’দেশের মধ্যে বাণিজ্যিক সম্পর্কের সঙ্গে যুক্ত করার চেষ্টা করছে। তবে এই সংযোগ ইরাক ও তার প্রতিবেশীদের মধ্যে সম্পর্ক নষ্ট করবে বলে সংযোগ স্থাপনে অস্বীকৃতি জানিয়েছে সরকার।

উল্লেখ্য, ব্যাপক মানববিধ্বংসী অস্ত্র থাকার অভিযোগ তুলে ২০০৩ সালে ইরাকে হামলা চালায় মার্কিন নেতৃত্বাধীন জোট। হামলায় ক্ষমতাচ্যুত হন তৎকালীন প্রেসিডেন্ট সাদ্দাম হোসেন। পরে মার্কিন বাহিনীর হাতে ধরা পড়ার পর ইরাকের আদালতের রায়ে মৃত্যুদণ্ডে দণ্ডিত হন তিনি। নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয় সাদ্দামের রাজনৈতিক দল বাথ পার্টিকে। ইরাকে মার্কিন হামলার মধ্যে প্রতিরোধ যুদ্ধে নিহত হন সাদ্দামের দুই ছেলে। যুদ্ধের একপর্যায়ে ইরাক ছেড়ে পালিয়ে যান মেয়ে রাঘাদ হোসেনসহ পরিবারের অন্য সদস্যরা। বাথ পার্টিকে সহায়তার অভিযোগে ২০০৭ সালে আন্তর্জাতিক পুলিশ সংস্থা ইন্টারপোল রাঘাদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ