November 14, 2019, 1:44 pm

রংপুরে আবারো এশিয়ান ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যু

Spread the love

 

আবুল হোসেন বাবলু,বিশেষ প্রতিনিধি ||

 

আবারো এশিয়ান ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসার কারণে একজন প্রসূতি মৃত্যুর মুখে ঢলে পড়লে ক্লিনিক কতৃপক্ষ, পরিবারের লোকজনকে না জানিয়ে

রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিইউতে নিয়ে গিয়ে ভর্তি করিয়েছে।   রাতে ওই রোগী মারা গেলে, রোগীর সঙ্গে থাকা এশিয়ান ক্লিনিকের লোকজন মরদেহ রেখেই পালিয়ে যায়।

জানাগেছে কিশোরগঞ্জের দক্ষিণ চাঁদখানা বড়বালা এলাকার শ্রী প্রমোদ

চন্দ্র রায় তার স্ত্রী মিতিন রানীকে সিজারের জন্য রংপুরের আরকে রোডস্থ

এশিয়ান ক্লিনিকে ভর্তি করান। নিহতের পরিবারের লোকজন জানান এশিয়ান ক্লিনিক ৩০৩ নম্বর রুমে ভর্তি ছিলো মিতিন রানী, বৃহস্পতিবার ২৪ অক্টোবর সিজার হয়েছিলো । কি কারণে তারা রোগীকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের আইসিইউতে নিয়ে গেছে আমরা জানিনা।

এ ব্যাপারে ক্লিনিক কর্তৃপক্ষের সাথে মুঠোফোনে কথা হলে, ক্লিনিকের মালিক সরাসরি প্রতিবেদককে বলেন, একটা ঝামেলা হয়েছিল সামান্য একটু, সেটা আমরা মীমাংসা করে নিয়েছি। রোগীর সমস্যার কারণেই রোগী মারা গেছে। ভুল বুঝাবুঝি নিয়ে একটু বাড়াবাড়ি হয়ে গেছে। নিহত মিতিন রানীর স্বামী প্রমোদ

চন্দ্র রায় জানান আমারদের সাথে কোনো মিমাংসা হয়নি।

রংপুরের সচেতন মহল ও রোগীর পরিবার এ ব্যাপারে বলছেন, রংপুরের  ক্লিনিক গুলোতে প্রসূতি  ও নবজাতকের মৃত্যু,এই ধরনের দুর্ঘটনার জন্য,  প্রথমতঃ এনেসথেসিয়া ডাক্তার,  দ্বিতীয়তঃ সার্জন, তৃতীয়তঃ ক্লিনিক কর্তৃপক্ষ এদের বিচারের আওতায় আনা উচিত। এর জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ জরুরি।

 

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ