October 15, 2019, 7:21 pm

বঙ্গবন্ধুর খুনিদের মরণোত্তর বিচার দাবি তথ্য প্রতিমন্ত্রীর

Spread the love

বঙ্গবন্ধুর খুনিদের মরণোত্তর বিচার দাবি তথ্য প্রতিমন্ত্রীর

ডিটেকটিভ নিউজ ডেস্ক

 

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হত্যাকাণ্ডে সরাসরি জড়িত বিপথগামী সেনা কর্মকর্তাদের বিচার হলেও এর নেপথ্যে যারা ছিলেন, তাদের বিচার চায় বাঙালি জাতি। একটি স্বাধীন কমিশন গঠন করে পলাতক খুনিদের দেশে ফিরিয়ে আনা ও মৃত খুনিদের মরণোত্তর বিচার চাই। এ দাবি হাতে গোনা কিছু ব্যক্তির না। এ দাবি গোটা বাঙালি জাতির। গতকাল বৃহস্পতিবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে বাংলাদেশ ওলামা মাশায়েখ ঐক্যজোট আয়োজিত জাতির পিতার ৪৪তম শাহাদত বার্ষিকী উপলক্ষে ৪৪ বার কোরআন খতম অনুষ্ঠানে এ দাবি জানান তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান। প্রতিমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু ছিলেন ইসলামের বড় অনুসারীদের মধ্যে একজন। তিনি এ দেশে ইসলামের প্রসারে সবচেয়ে বড় ভূমিকা রেখেছেন। জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররম প্রতিষ্ঠা, তুরাগ নদীর তীরে ইজতেমার জমি বরাদ্দ, কাকরাইল মারকাজ মসজিদে জমি বরাদ্দ, ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা করেন তিনি। অথচ সেই মহান ব্যক্তিকে মুসলমানদের মধ্য থেকেই বিপথগামীরা হত্যা করলেন। এটা ছিল সবচেয়ে জঘন্য হত্যাকাণ্ড। যেখানে নারী, শিশু এমনকি পেটের বাচ্চাসহ একটি পরিবারকে হত্যা করা হয়। ডা. মুরাদ হাসান বলেন, জঘন্য হত্যাকাণ্ডে যারা সরাসরি অংশ নেন, তাদের বিচার হলেও মূল কুশীলবদের মুখোশ এখনও উন্মোচন হয়নি। একটা স্বাধীন কমিশন গঠন করে এই কুশীলবদের মুখোশ উন্মোচন করতে হবে। জাঁতি জানতে চায় কারা এই হত্যাকাণ্ডে মদদ দিয়েছেন। যারা পলাতক আছে, তাদের দেশে ফিরিয়ে আনতে হবে। যারা মারা গেছেন, তাদের মরণোত্তর বিচার করতে হবে। বাংলাদেশ ওলামা মাশায়েখ ঐক্যজোট সভাপতি মুফতি আবদুল হালিম সিরাজির সভাপতিত্বে আয়োজিত আলোচনা সভায় বিভিন্ন রাজনৈতিক ব্যক্তি ও ওলামা মাশায়েখ বক্তব্য রাখেন।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ