October 16, 2019, 2:45 pm

শিরোনাম :
সিরাজগঞ্জে যমুনায় নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ইলিশ মাছ ধরার অপরাধে ৭ জেলের কারাদন্ড মৃত্যুর ৪মাস পর বড়াইগ্রামে আ”লীগ নতোর লাশ কবর থকেে উত্তোলন সুন্দরগঞ্জের পি আই ও কর্তৃক ১২ জনের বিরুদ্ধে মামলা বগুড়ায় আর কোন মাদক বিক্রি ও সেবন করতে দেওয়া হবে না ——– এস.আই আব্দুর রহিম ঝালকাঠির খোকন মিয়া জাল টাকাসহ ঢাকায় আটক আগামী ৭ নভেম্বর সংসদ অধিবেশন বসছে জগন্নাথপুরে সরকারি গাড়ির ধাক্কায় শিশু আহত জৈন্তাপুরে বিজিবি-বিএসএফ’র পতাকা বৈঠক আটক ভারতীয় নারী ও বাংলাদেশী পুরুষ হস্তান্তরে উভয়দেশ সম্মত বিদ্যুৎ না থাকালেও শিক্ষার আলোই আলোকিত পাঠশালা কুড়িগ্রামবাসী দীর্ঘ দিনের স্বপ্ন ‘কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেস’ আন্তনগর ট্রেনের শুভ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

ফুটপাতে অবৈধ স্থাপনা সরাতে ডিএনসিসি’র অভিযান

Spread the love

ফুটপাতে অবৈধ স্থাপনা সরাতে ডিএনসিসির অভিযান

ডিটেকটিভ নিউজ ডেস্ক 

 ফুটপাতে দুটি অবৈধ স্থাপনা গড়ে ওঠার কারণে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) আইডিআইপি মেগা প্রজেক্টের কাজ দীর্ঘদিন ধরে থেমে ছিলো। মূলত এই প্রজেক্টের কাজ বেগবান করতেই অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদে কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে ডিএনসিসির নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এস এ অজিয়র রহমান উচ্ছেদ অভিযান শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন। বেলা সাড়ে ১১টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত রাজধানীর শেরেণ্ডণ্ডবাংলা নগরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসাপাতাল গেট সংলগ্ন ফুটপাতে অবৈধ স্থাপনা ও দোকানপাট উচ্ছেদ করে ডিএনসিসি’র ভ্রাম্যমাণ আদালত। এস এম অজিয়র রহমান বলেন, আমাদের এই অভিযানটি ‘গ্রিন ঢাকা ক্লিন ঢাকা প্রোগ্রামের অন্তর্ভুক্ত নিয়মিত কার্যক্রমেরর অংশ। ফুটপাতে কোনো অবৈধ স্থাপনা থাকতে দেওয়া হবে না। তিনি বলেন, শেরণ্ডণ্ডবাংলা নগর এলাকার সড়কের পাশে ফুটপাত নির্মাণের জন্য ডেভেলপম্যান্টের কাজ চলমান রয়েছে। কিন্তু কিছু সুবিধাভোগী লোক এই ফুটপাত দখল করে কংক্রিট দিয়ে দুটি দোকান ঘর তৈরি করে। এতে আমাদের এই প্রজেক্টের কাজ বাধাগ্রস্থ হচ্ছিলো। তাই ডিএনসিসি’র উন্নয়নমূলক কাজকে তরান্নিত করতে ফুটপাতের ওপর গড়ে ওঠা দুটি স্থাপনা (দোকান) ভেঙে ফেলা হয়েছে। মেয়র আনিসুল হক দায়িত্বে আসার পর নগরীতে একটা রেডিক্যাল চেঞ্জ (বৈপ্লবিক পরিবর্তন) হয়েছে জানিয়ে অজিয়র রহমান বলেন, এই ধারা অনুযায়ী আমরা কাজ করতে পারলে দ্রুতই ‘গ্রিন ঢাকা ক্লিন ঢাকা বাস্তবায়ন করা সম্ভব হবে। ফুটপাত জনমানুষের ব্যবহারের জন্য (নির্বিগ্ন চলাচল)। এর ওপর কোনো স্থাপনা নির্মাণ করা সম্পূর্ণ অবৈধ। আর অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদে নিয়মিত কাজ করে যাচ্ছেন বলেও জানান তিনি। ডিএনসিসি আইডিআইপি মেগা প্রজেক্টের সম্পর্কে নির্বাহী প্রকৌশলী (অঞ্চলণ্ড৫) মো. শরীফ হোসেন বলেন, এ ফুটপাতটি সম্পূর্ণ আন্তর্জাতিক মানসম্পন্নভাবে তৈরি করা হবে। সড়কের পাশে পথচারীদের চলাচলের জন্য থাকবে প্রশস্ত ফুটপাত। এ ফুটপাতে দুই ধরনের টাইলস বসানো হবে। সম্পূর্ণ লাল রংয়ের টাইলসের একপাশে থাকবে হলুদ রংয়ের স্ট্রেট লাইন টাইলস। এ বিশেষ টাইলসের সহায়তায় দৃষ্টি প্রতিবন্ধীরা চলাচল করতে পারবে। টাইলসের ডিজাইন থাকবে স্ট্রেট লাইন। যেখানে সামনে গিয়ে ডানে/বামে মোড় বা ঢালু নির্দেশ করতে গোল গুটিণ্ডগুটি নকশার টাইলস বসানো হবে। এতে খুব সহজেই দৃষ্ট প্রতিবন্ধীরা ফুটপাথ দিয়ে চালাচল করতে পারবে। সড়কের পাশে ফুটপাতগুলো আর্ন্তজাতিক মান মেনেই তৈরি করা হচ্ছে বলেও জানান তিনি। এদিকে সরেজমিনে দেখা যায়, জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতাল এবং সোহরাওয়ার্দীর মাঝের রাস্তার ফুটপাতে অবৈধভাবে গড়ে ওঠা ফুটপাতগুলো সড়িয়ে নিচ্ছে দোকানিরা। উচ্ছেদ অভিযানের খবর শুনে সকাল সাড়ে ১০টা থেকেই হাসপাতাল সংলগ্ন ফুটপাতে থাকা দোকানপাট খুলে সরানোর কাজ করছে তারা। আলণ্ডআমিন নামে এক দোকানি বলেন, ‘আমাদের প্রায় সময় এমন দৌঁড়ের ওপর ধাকতে হয়। গত রোজার সময় একবার উচ্ছেদ করেছিলো। এরপর আজ (গতকাল বৃহস্পতিবার) উচ্ছেদের জন্য ডিএনসিসির লোক আসছে। কি করবো সরকারি জায়গা দোকান সরিয়ে নিয়ে যাচ্ছি। স্থানীয়রা জানায়, সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে উচ্ছেদ অভিযান চালানো হয়। উচ্ছেদ শেষে তারা চলে গেলে আবার ফুটপাত দখল করে ব্যবসা শুরু করে দেয় এসব ব্যবসায়ীরা।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ