August 19, 2019, 1:14 pm

শিরোনাম :
গোয়াইনঘাটে আবনায়ে মুঈনুল ইসলামের পথচলা শুরু মঠবাড়িয়ায় অভিমানের জের ধরে যুবকের আত্মহত্যা উন্মুক্ত নদী বদ্ধ দেখিয়ে ইজারা পাইকগাছায় পোদা ও গয়সা নদীতে বাঁধ দিয়ে মাছ চাষ করায় পানি সরবরাহের পথ বন্ধ : ব্যাপক ক্ষয়-ক্ষতি জামালপুরে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ২ জনের মৃত্যুর দাবি করেছে পরিবার গুইমারায় প্রাতিষ্ঠানিক জলাশয়ে মাছের পোনা অবমুক্ত করন তাহিরপুরে ইয়াবা ট্যাবলেট সহ ব্যবসায়ী আটক কোম্পানিগঞ্জ যুব জমিয়তের ঈদ পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত চিলমারীতে আন্তঃনগর ট্রেন চালুর দাবিতে মানববন্ধন সুন্দরগঞ্জে বাড়িতেই চিকিৎসাহীনতায় ভুগছেন বীর মুক্তিযোদ্ধা আঃ ওয়াহেদ একশ পিচস ইয়াবাসহ এক মাদক বিক্রেতা আটক

পার্বত্য অঞ্চলে আগামীতে নিরাপত্তা জন্য সব ধরনের পদক্ষেপ সরকারের যা প্রয়োজন তাই করবে : মন্ত্রী বীর বাহাদুর

Spread the love

অং মারমা,বান্দরবান জেলা প্রতিনিধি|

পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী বীর বাহাদুর বলেছেন, সন্ত্রাসীর জন্য কোন জাত নেই, ধর্ম নেই,বর্ণ নেই। শান্তি চুক্তি দেরি হলে দুটি লোক খুন করলেই কি শান্তি চুক্তি বাস্তবায়িত হয়ে যাবে? শান্তি চুক্তি হয়েছে,  চুক্তি বাস্তবায়ন চলমান রয়েছে ।শুক্রবার দুপুরে জেলা পরিষদ অডিটরিয়মে বান্দরবান পার্বত্য জেলার প্রতিটি ইউনিয়নের নারীদের আর্থ সামাজিক অবস্থার উন্নয়নে বিভিন্ন ফলজ চারা, গরু, কপি চারা, মৎস্য পোনা, বাদ্যযন্ত্র, ক্রীড়াসামগ্রী ও কৃষি যন্ত্রপাতি বিতরণ অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন । অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্যশৈহ্লা ।তিনি আরো বলেন, কি পাহাড়ি কি বাঙালি সবাই মিলে শান্তি ও সম্প্রীতির জন্য আমাদের ঐক্যবদ্ধভাবে এক সুরে কথা বলতে হবে এবং বাংলাদেশের সবাই মিলেমিশে বসবাস করতে হবে । আগামীতে আমাদের সবাইকে সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ এ ধরনের লোকদের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে ।আগামীতে মানুষের জানমাল রক্ষার জন্য এ অঞ্চলে সরকারের যা প্রয়োজন তাই করবে সরকার বললেন মন্ত্রী বীর বাহাদুর।এসময় উপস্থিত ছিলেন, পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব সুদত্ত চাকমা, বান্দরবানের জেলা প্রশাসক মো: দাউদুল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো: কামরুজ্জামান, পৌর মেয়র ইসলাম বেবী সহ আরো অনেকে ।আলোচনা সভা শেষে মন্ত্রী ইউনিয়ন পর্যায়ে নারীদের আর্থসামাজিক উন্নয়নে কৃষি উপকরণ বিতরণ করেন এ সময় ২৫ জনকে গরুর বাছুর, ৩১৭ জনকে চায়না থ্রি, কপি চারা এবং মিশ্র ফলদ চারা বিতরণ করা হয় । এছাড়াও জেলার ১৩০ টি পাড়ার ৯১ জনকে পাওয়ার টিলার ও ৯১ জনকে পাওয়ার পাম্প বিতরণ করা হয়। এছাড়াও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের মাঝে বিতরণ করা হয় ক্রীড়া সামগ্রী ।

প্রাইভেট ডিটেকটিভ/৫জুলাই ২০১৯/ইকবাল

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ