January 18, 2020, 1:34 am

ডেথ ওভারে অধিনায়কের বাজে বোলিংয়ের আক্ষেপ

Spread the love

ডেথ ওভারে অধিনায়কের বাজে বোলিংয়ের আক্ষেপ

ডিটেকটিভ স্পোর্টস ডেস্ক

৪০ ওভার পর্যন্ত বাংলাদেশের বোলিং মোটামুটি ঠিক ছিল। এরপর তাণ্ডব চালিয়ে অস্ট্রেলিয়া গড়ে রানের পাহাড়। অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা মনে করেন, শেষ ১০ ওভারের বাজে বোলিং ম্যাচে পার্থক্য গড়ে দিয়েছে।

নটিংহ্যামের ট্রেন্ট ব্রিজে বাংলাদেশ ওয়ানডেতে নিজেদের সর্বোচ্চ সংগ্রহ গড়েও হেরেছে ৪৮ রানে। ৩৮১ রান তাড়ায় ৮ উইকেটে মাশরাফির দল করে ৩৩৩। ছাড়িয়ে যায় এই আসরে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে করা নিজেদের আগের সেরা ৬ উইকেটে ৩৩০ রান। অধিনায়ক জানান, বিশাল লক্ষ্য তাড়া করা সম্ভব, এই বিশ্বাস তাদের ছিল।

“ভালো একটা শুরু পেলে কি হতে পারে আপনি জানেন না। ৃআমার মনে হয় আমরা ফিল্ডিংয়ে ৪০ থেকে ৫০ রান বেশি দিয়েছি, বিশেষ করে ৪০ ওভারের পর। তা না হলে লক্ষ্য তাড়াটা অন্যরকম হতো, ব্যাটসম্যানদের মাইন্ড সেটআপ অন্যরকম হতো। তবে ডেভিড ওয়ার্নার ও অস্ট্রেলিয়ার অন্য ব্যাটসম্যানদের কৃতিত্ব দিতে হবে।”

“আমরা যখন ব্যাটিং করি তখন মুশফিক, সাকিব, তামিম খুব ভালো করেছে। শেষের দিকে (মাহমুদউল্লাহ) রিয়াদ খুব ভালো ছিল। সৌম্যর রান আউটের পর সাকিব-তামিম দলকে এগিয়ে নিচ্ছিলৃ ৩৮১ রান তাড়া করে জেতা অনেক কঠিন।”

৬ ম্যাচ খেলে ৫ পয়েন্ট নিয়ে পাঁচ নম্বরে আছে বাংলাদেশ। এই হারে শেষ চারের পথ অনেক কঠিন হয়ে গেল মাশরাফিদের।

“এখন প্রতি ম্যাচই জিতবে হবে, এরপরও অন্য ম্যাচের ফলের জন্য হয়তো অপেক্ষা করতে হবে। আমরা নিজেদের সেরাটা দিয়ে চেষ্টা করব। এরপর দেখি কি হয়।”

বাংলাদেশ শেষ তিন ম্যাচে খেলবে যথাক্রমে আফগানিস্তান, ভারত ও পাকিস্তানের বিপক্ষে।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ