August 23, 2019, 7:59 pm

শিরোনাম :
জামালপুরের ডিসির সাথে অফিস সহকারির আপত্তিকর নিয়ে তোলপাড় তাহিরপুরে কৃষ্ণজন্মাষ্টমী পালিত শিবগঞ্জ বাসি বীরমুক্তিযোদ্ধার সন্তান ডঃ তোহিদুল ইসলাম পলাশকে শ্রমিকলীগ সভাপতি হিসেবে দেখতে চায় দিনাজপুর জেলার নবাবগঞ্জ উপজেলার “সুলতান মাহমুদ অটিজম ও প্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ের উদ্দেগে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে দোয়া ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত চাদাঁ দিয়ে নয় ,একই মায়ের অভিন্ন সন্তান হিসেবে বসবাস করতে চাই-কংজরী চৌধুরী তোয়াকুল ছাত্র জমিয়তের প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত বগুড়ার মহাস্থান উচ্চ বিদ্যালয়ে ডেঙ্গু প্রতিরোধে শিক্ষার্থীদের নিয়ে জনসেচনতামূলক র‌্যালী ও লিফলেট বিতরন বোয়ালমারীতে প্রাইম ব্যাংক কর্মকর্তার বিদায় বরণ অনুষ্ঠান সারিয়াকান্দিতে বজ্রঘাতে মানুষ সহ গরুর মৃত্যু তাহিরপুর প্রেসক্লাব সাংগঠনিক সম্পাদকসহ ৩ সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলার প্রতিবাদে তাহিরপুর প্রেসক্লাবের নিন্দা ও প্রতিবাদ

ডাক মারার ‘অনন্য’ রেকর্ড গড়লেন অ্যাশটন

Spread the love

ডাক মারার ‘অনন্য’ রেকর্ড গড়লেন অ্যাশটন

ডিটেকটিভ স্পোর্টস ডেস্ক

 

ভারতের বিরুদ্ধে ওয়ানডেতে ঝড় তুলে আলোচনায় এসেছিলেন অ্যাশটন টার্নার। এবার আইপিএলেও আলোচনায়। তবে ইতিবাচক নয়, নেতিবাচক কারণে।

মাত্র দেড় মাসের মাথায় মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠ দুই-ই দেখা হয়ে গেল অ্যাশটন টার্নারের।

ঠান্ডা মাথায় ম্যাচ শেষ করে আসার ক্ষমতার কারণে অস্ট্রেলিয়ার ঘরোয়া লিগগুলোয় ‘অস্ট্রেলিয়ান ধোনি’ হিসেবে বেশ নাম কামিয়েছেন। আসলেই যে ঠান্ডা মাথায় ম্যাচ শেষ করে আসতে পারেন, তা বিশ্ব প্রথম টের পেয়েছে গত ভারত-অস্ট্রেলিয়া ওয়ানডে সিরিজে। সে সিরিজ বাঁচানোর জন্য চতুর্থ ওয়ানডেটা জেতাই লাগত অস্ট্রেলিয়ার। এমন অবস্থায় ভারতের ৩৫৮ রান তাড়া করতে গিয়ে ছয় নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ৪৩ বলে ৮৪ রানের দুর্দান্ত এক ইনিংস খেলেন টার্নার। ম্যাচ ছিনিয়ে আনেন ভারতের হাত থেকে। তখন অনেকেই আইপিএলের ফ্র্যাঞ্চাইজি রাজস্থান রয়্যালসের দিকে হিংসার দৃষ্টিতে তাকিয়েছিল। কেননা, এই ইনিংসের আগেই টার্নারের প্রতিভার খোঁজ পেয়ে তাঁকে দলে ভিড়িয়েছিল রাজস্থান।

কিন্তু এই আইপিএলে রাজস্থান টার্নারের ঝলক দেখছে কই? উল্টো লজ্জাজনক এক রেকর্ডে নাম লিখিয়েছেন এই অস্ট্রেলীয় তারকা। এবার আইপিএলে টানা তিন ম্যাচে শূন্য রানে আউট হয়েছেন। শুধু তা-ই নয়, আইপিএল খেলতে আসার আগে খেলা দুটি ম্যাচেও ‘ডাক’ মেরেছিলেন টার্নার। ভারতের বিপক্ষে একটি টি-টোয়েন্টিতে পাঁচ বল খেলে শূন্য করেছিলেন। বিগ ব্যাশ লিগেও পার্থ স্করচার্সের হয়ে ব্যাট করতে নেমে অ্যাডিলেড স্ট্রাইকার্সের বিরুদ্ধে প্রথম বলেই আউট হয়েছিলেন। ফলে, টানা পাঁচটি টি-টোয়েন্টি ইনিংসে ডাক মারার ‘অনন্য’ রেকর্ডে নিজের নাম লিখেছেন দুর্ভাগা এই তারকা।

আইপিএলের ইতিহাসে টানা তিনটি ডাক মেরে আরও পাঁচ ব্যাটসম্যানের পাশে নাম লিখিয়েছেন টার্নার। গতকাল দিল্লি ক্যাপিটালসের গোল্ডেন ডাকের আগে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব ও মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের বিপক্ষেও ডাক মেরেছিলেন। আরও মজার ব্যাপার, এই পাঁচ ম্যাচের মধ্যে চারটিতেই আউট হয়েছেন প্রথম বলে। অর্থাৎ গোল্ডেন ডাক মেরেছেন চারটি। তিনটিই এবারের আইপিএলে।

টার্নারের ফর্ম প্রভাব ফেলেছে পয়েন্ট তালিকায় রাজস্থানের অবস্থানের ওপর। আট দলের টুর্নামেন্টে সপ্তম অবস্থানে আছে উদ্বোধনী আসরের চ্যাম্পিয়নরা।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ