October 16, 2020, 5:45 pm

শিরোনাম :
নাটোরে ট্রাক-মোটর সাইকেল সংঘর্ষে ১ নারীর মৃত্যু কেশবপুর পৌরসভা নির্বাচনে সম্ভাব্য মেয়র পদপ্রার্থী অ্যাডভোকেট মিলন মিত্রের মতবিনিময় এসআই আকবরের দেশত্যাগ রোধে বেনাপোল সীমান্তে সতর্কতা জারী যশোরের নওয়াপাড়ায় ট্রেনের ধাক্কায় ৬ প্রাইভেট আরোহী হতাহত নওগাঁয় আদালত ভবনের সামনে গরীবদের একবেলা করে ফ্রি খাওয়ান হোটেল ব্যবসায়ী আলী আজগর র‍্যাব-৫ সিপিসি-২ নাটোরের অভিযানে ১১৫ বোতল ফন্সিডিল উদ্ধার’ ০১ মাদক ব্যবসায়ী আটক জীবিত ব্যক্তিকে মৃত দেখিয়ে ১০ টাকা কেজি চালের কার্ড বাতিলের অভিযোগ জগন্নাথপুরে ছাত্রী ধর্ষণের চেষ্টায় তরুণ গ্রেফতার তাহিরপুরে ভারতীয় বন্য হাতির আতঙ্ক সীমান্তবাসী নবীগঞ্জ থানা পুলিশের বিশেষ অভিযানে বিভিন্ন স্থান থেকে ১১ আসামী গ্রেফতার কেশবপুরে সরকারি অর্থ সহায়তায় দাবীতে করোনায় কর্মহীন হয়ে পড়া মাইক, লাইট মালিক-শ্রমিকদের মৌনমিছিল দেশব্যাপী নারী ধর্ষন ও সহিংসতার প্রতিবাদে কেশবপুরে সিপিবির মানববন্ধন রৌমারীতে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনাস্থা ৪বছর ধরে মাসিক সভা বন্ধ ঝিনাইদহের হরিণাকুন্ডুতে ধানক্ষেত থেকে যুবকের লাশ উদ্ধার, আটক-২ চকবাজার এলাকা হতে ৭৮০ বোতল ফেন্সিডিলসহ ০৪ জন মাদক ব্যাবসায়ী গ্রেফতার বগুড়ার সারিয়াকান্দিতে বাজার মনিটরিং ও মাস্ক ব্যবহার না করায় ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান বকশীগঞ্জে এসডিজি অর্জনে জেলা নেটওয়ার্ক এর ষান্মাসিক সভা অনুষ্ঠিত ঝিকরগাছার শংকরপুরে কর আদায় করতে গিয়ে হামলার শিকার র‍্যাব-৫ অভিযানে অবৈধ ইয়াবা ও হেরোইন উদ্ধার;গ্রেফতার-০২ লালপুরে ট্রাক চাপায় একজনের মৃত্যু; ঘাতক ট্রাক আটক

জীবিত ব্যক্তিকে মৃত দেখিয়ে ১০ টাকা কেজি চালের কার্ড বাতিলের অভিযোগ

Spread the love
রুহুল আমীন খন্দকার, ব্যুরো প্রধানঃঃ
রাজশাহীর পুঠিয়াতে ১০টাকা কেজি চালের কার্ডের জন্য একই গ্রামের দুই ব্যক্তিকে মৃত ঘোষনা করা হয়েছে। সেই সঙ্গে তাদের স্থলে অন্য ব্যক্তিকে কার্ড করে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। উপজেলার সদর ইউনিয়নের বারইপাড়া গ্রামেই ঘটেছে এমন ঘটনা। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় গ্রামবাসীদের মধ্যে ইতোমধ্যেই চলছে আলোচনা সমালোচনার ঝড়।
জীবিত যে দুই ব্যক্তিকে মৃত দেখানো হয়েছে তারা হলেন, সদর ইউনিয়নের বারইপাড়া গ্রামের আকতার হোসেনের ছেলে মাসুদ রানা ও একই গ্রামের মোবারক হোসেনের স্ত্রী মমতাজ বেগম। এছাড়াও সদর ইউনিয়নের অন্যান্য গ্রামের একই অবস্থা বলে জানাগেছে। এ ব্যাপারে ভুক্তভোগীরা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন। ভুক্তভোগীরা জানান, আমরা গরীব দিনমজুর। আমদের তেমন কোন আয় রোজগার নাই। উপজেলা খাদ্য অফিস থেকে আমাদের ১০টাকা কেজি চালের কার্ড দেওয়া হয়। যার  নম্বর- ৮৯৯ ও ৯৭৫। যা দিয়ে প্রায় পাঁচ বছর থেকে চাল কিনতাম।
ভুক্তভোগীরা আরো বলেন, সম্প্রতি ডিলারের কাছে চাল কিনতে গেলে জানতে পারি যে আমাদেরকে মৃত দেখিয়ে আমার কার্ডটি অন্য কাউকে দেয়া হয়েছে। কার্ডটি বহাল রাখার জন্য উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) বরাবর আমরা আবেদন করেছি। পাশাপাশি যারা এ অনৈতিক কাজের সাথে জড়িত তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনেরও জোর দাবি জানানো তারা।
এবিষয়ে পুঠিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) নুরুল হাই মোহাম্মদ আনাস পিএএ এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি গণমাধ্যম কর্মীদের জানান, এ প্যাপারে খোঁজখবর নিয়ে দেখা হবে। ঘটনা সঠিক হলে জড়িতদের বিরুদ্ধে দেশের প্রচলিত আইনে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ