August 21, 2019, 9:06 pm

শিরোনাম :
মানুষের কল্যাণে কাজ করতে গিয়ে বারবার মৃত্যুর সম্মুখীন হয়েছি: প্রধানমন্ত্রী গ্রেনেড হামলার দায় খালেদা জিয়া এড়াতে পারেন না: তথ্যমন্ত্রী জন্মাষ্টমী ঘিরে কঠোর নিরাপত্তা পরিকল্পনা ডিএমপি’র একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলায় নিহতদের প্রতি শ্রদ্ধা উচ্চ আদালতে তারেকের সর্বোচ্চ সাজার আবেদন করা হবে: ওবায়দুল কাদের চট্টগ্রামে কাভার্ড ভ্যান থেকে ৫০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার, আটক ৩ গ্রেনেড হামলা মামলার আপিল শুনানি ২-৪ মাসের মধ্যে: আইনমন্ত্রী গ্রেনেড হামলায় জড়িতদের বিচারে উদ্যোগ নেবে সরকার: মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী গ্রেনেড হামলার সুষ্ঠু তদন্ত হয়নি, জোর করে তারেকের নাম বলানো হয়েছে: রিজভী ডেঙ্গুতে আক্রান্তের সংখ্যা কমলেও আতঙ্ক কমছে না

জামায়াত-বিএনপি সমান মোনাফেক: মতিয়া চৌধুরী

Spread the love

জামায়াত-বিএনপি সমান মোনাফেক: মতিয়া চৌধুরী

ডিটেকটিভ নিউজ ডেস্ক

জামায়াত-বিএনপি ধর্মকে ব্যবহার করে অধর্ম করে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরী। তিনি বলেন, জামায়াত-বিএনপি সমান মোনাফেক। এরা ধর্মকে পুঁজি করে ধর্মের নামে অর্ধম করে। গতকাল বৃহস্পতিবার বঙ্গবন্ধু এভিনিউস্থ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক উপ-কমিটির আয়োজনে ‘নারীর অগ্রযাত্রায় সমৃদ্ধ বাংলাদেশ: শেখ হাসিনার অবদান’ শীর্ষক সেমিনারে তিনি এসব কথা বলেন। মতিয়া চৌধুরী বলেন, নারী নেতৃত্ব হারাম, পাশে বসলে আরাম। এটি হচ্ছে জামাতের একটি চেহারা। তাদের আরেকটি চেহারা আমরা ২০১৪ সালে দেখেছি, ২০১৫ সালে দেখেছি অগ্নিসন্ত্রাস। শবেবরাতের রাতে বাসে করে বাবা-মা-মেয়ে ফিরছে, তাদের পেট্রোল বোমা মেরে, মেরে ফেলা হলো। এর নাম ইসলাম! এর নাম বিএনপির ধর্ম নিয়ে রাজনীতি। জঙ্গিদের সঙ্গে নিয়ে বিএনপি-জামায়াত আমাদের অগ্রযাত্রাকে নস্যাৎ করতে চায়। আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর এই সদস্য বলেন, আজকের দিনে শেখ হাসিনার সাফল্যের পাশাপাশি সমাজের অন্ধত্বের বিষয়ে জনগণকে বিশেষ করে নারী সমাজকে সচেতন থাকতে হবে। সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও সাবেক কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী বলেন, জঙ্গিবাদের সহায়ক শক্তি জামায়াত-বিএনপি। এরা ধর্মকে ব্যবহার করে অধর্মের কাজ করে। খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে জামায়াত কৃষি, শিল্পকে ধ্বংস করেছিল, জঙ্গিবাদের সৃষ্টি করেছিল। শেখ হাসিনা এই জঙ্গিবাদকে সাহসিকতার সঙ্গে মোকাবিলা করেছেন। তারপরও এদের ষড়যন্ত্র থেমে নেই। এদের ব্যাপারে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। নারী উন্নয়নে শেখ হাসিনার সফলতার কথা তুলে ধরে মতিয়া চৌধুরী বলেন, দীর্ঘ ২১ বছর পর আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এলে শেখ হাসিনা বাবার পাশাপাশি মায়ের নামও লেখার সরকারি নির্দেশ দিয়েছিলেন। আজ হাইকোর্ট বাবার পাশাপাশি মায়ের নাম লেখার নির্দেশ দিয়ে সেই কথা স্মরণ করিয়ে দিয়েছেন। শেখ হাসিনা ওই সময় ইউনিয়ন পরিষদে সরাসরি নারীদের নির্বাচনের ব্যবস্থা চালু করে। তিনি প্রথম নারী বিচারপতি করেন। আজ যে নারীর অগ্রগতি সেটা শেখ হাসিনাই শুরু করেছিলেন। সেমিনারে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেন, ফেসবুকে ধানক্ষেতে আগুনের ছবি দেওয়া হয়। বলা হয় বগুড়ায় ধানেরক্ষেতে আগুন দেওয়া হয়েছে। আমরা খবর নিয়েছি বগুড়ায় আগুন দেওয়া হয়নি। ভারতের পাঞ্জাবে ধানক্ষেতে আগুন লেগেছিল। উদ্দেশ্যমূলকভাবে সেই ছবি বগুড়ায় ধানক্ষেতে আগুন বলে প্রচার করা হচ্ছে। পাটকল শ্রমিকদের উসকে দেওয়া হচ্ছে। এর আগে তারা আগুন দিয়ে মানুষ পুড়িয়ে সরকার উৎখাতে ব্যর্থ হয়েছে। এখন এ ধরনের পথ বেছে নিয়েছে। এতেই প্রমাণ হয় সরকারের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র এখনও শেষ হয়নি। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশে যে উন্নয়ন হয়েছে সেই উন্নয়ন বাধাগ্রস্ত করতে দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র জনগণ সহয্য করবে না। আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক উপ-কমিটির চেয়ারম্যান অধ্যাপক সুলতানা শফির সভাপতিত্বে সেমিনারে মূল প্রবন্ধ পাঠ করেন অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন। সেমিনারে আরও বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, মহিলা বিষয়ক সম্পদক ফজিলাতুন্নেছা ইন্দিরা, সাবেক প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি, মহিলা শ্রমিক লীগের সভাপতি রওশন জাহান সাথী, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সদস্য নুরুল ইসলাম ঠান্ডু প্রমুখ।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ