July 6, 2020, 9:45 pm

শিরোনাম :
চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর মডেল থানায় রিমান্ডে থাকা হোরোইন মামলার আসামীর মৃত্যু রাজনগরে তরুণীকে গণধর্ষন ও হত্যা মামলায় দুইনারীসহ ৬ জন গ্রেফতার রাজধানীর বনশ্রীতে রংয়ের কারখানায় আগুন, নিয়ন্ত্রণে ফায়ার সার্ভিসের ৫ ইউনিট দেশের জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী এন্ড্রু কিশোর মানুষের হৃদয়ে স্মরণীয় হয়ে থাকবেন- প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা না ফেরার দেশে চলে গেলেন দেশের জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী এন্ড্রু কিশোর জামায়াত নেতার নার্সারিতে আ.লীগের এমপি ডা. শিমুলের ভূরিভোজন’ দলের ত্যাগি নেতা-কর্মীদের প্রচন্ড ক্ষোভ! রাজশাহীর বাঘায় বাঁশের মাচায় বিশ্রাম নিতে গিয়ে এক ভ্র্যাম্যমান ছিট কাপড় ব্যবসায়ীর মৃত্যু রাজশাহীতে ইসলামী ব্যাংকের আলুপট্রি শাখাটি ১১ জনের করোনা শনাক্তের পর জনস্বার্থে লকডাউন বক‌শিগ‌ঞ্জ কা‌রেন্ট জাল ধ্বংস কর‌লেন ইউএনও : ঔষধ ব‌্যবসায়ী‌র জ‌রিমানা মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাড়ালো ২৪ পীরগঞ্জে থানার ওসিসহ আরও ২জন করোনা আক্রান্ত

গাইবান্ধায় ইঁদুরের ফাঁদে কাতলামারি বিলে মাছ ধরতে গিয়ে বিদ্যুৎ স্পর্শে চাচা-ভাতিজার মৃত্যু: আহত ১

Spread the love

গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি।।
বিলের পাড়ে জমিতে ইঁদুর মারার জন্য অব্যবস্থাপনায় বিদ্যুত এর ফাঁদ ব্যবহারের ফলে গাইবান্ধা জেলার সাদুল্যাপুর উপজেলার কাতলামারি বিলে মাছ ধরতে গিয়ে বিদ্যুতের তারে জড়িয়ে আইজল মিয়া (৪০) উজ্জল মিয়া (১৮) নামে চাচা-ভাতিজার মৃত্যু হয়েছে। এসময় হারুন (৩৫) নামে আরও এক যুবক আহত হয়েছেন বলে সর্বশেষ জানা যায়।
এ ঘটনাটি ঘটেছে সাদুল্যাপুর উপজেলার দামোদরপুর ইউনিয়নের পূর্ব দামোদারপুর গ্রামের কাতলামারি বিল এলাকায় ৩০ অক্টোবর বুধবার রাত ১১টার দিকে।নিহত আইজল ও উজ্জল সম্পর্কে চাচা-ভাতিজা। আইজল মিয়া দামোদরপুর ইউনিয়নের পশ্চিম দামোদরপুর গ্রামের মৃত্যু ছফুর উদ্দিনের ছেলে ও উজ্জল মিয়া একই গ্রামের দুলাল মিয়ার ছেলে। আইজল পেশায় গরু ব্যবসায়ী ছিলেন। মাছ মারতে গিয়ে নিজেদের মরতে হলো ইঁদুরের ফাঁদে বিদ্যুত স্পর্শে। চিরচায়িত মাছ ধরে আর বাড়ীতে ফিরতে পারলো না।
স্থানীয়রা জানান, রাতে বাড়ির পাশ্ববর্তী কাতলার বিলে মাছ ধরতে যায় আইজল, উজ্জল মিয়াসহ স্থানীয় কয়েকজন। তারা বিলে নামতে পাশের একটি ধানের জমি দিয়ে হাটছিলেন। এসময় ধানের জমিতে দেয়া বিদ্যুতের তারে জড়িয়ে যায় আইজল, উজ্জল ও হারুন মিয়া। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যায় আইজল ও উজ্জল মিয়া। আহত অবস্থায় উদ্ধার করা হারুনকে।নিহতদের স্বজন ও স্থানীয়দের অভিযোগ, ইদুর মারতে বাড়ি থেকে ধানের জমিতে বিদ্যুতের লাইন টেনে নিয়ে যায় পূর্ব দামোদরপুর গ্রামের মৃত্যু নয়া মিয়ার ছেলে ফুল মিয়া। কিন্তু সেই বিদ্যুতের লাইন জিআই তারের সঙ্গে মাটিতে ফেলে রাখেন তিনি। খুঁটির পরিবর্তে মাটিতে বিদ্যুতের তার ফেলে রাখায় হতাহতের ঘটনা ঘটেছে। এমন ঘটনায় ফুল মিয়ার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি স্থানীয়দের।
সাদুল্যাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাসুদ রানা বিষয়টি নিশ্চিত করে সাংবাদিকদের জানান, খবর পেয়ে নিহতদের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। আহত হারুনকে উদ্ধার করে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। জমিতে বিদ্যুতের লাইন নেয়া ও মাটিতে তার ফেলে রাখায় হতাহতের ঘটনা তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এ নিয়ে থানায় অপমৃত্যুর ইউডি মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ