September 22, 2020, 10:45 am

শিরোনাম :
২৪ ঘণ্টায় আরো প্রায় ৪ হাজার মানুষের মৃত্যু নূরের নামে এবার কোতয়ালী থানায় মামলা বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় কার্যকর রোডম্যাপ প্রণয়নের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর সুন্দরগঞ্জে স্কুল ছাত্রী অপহরণের অভিযোগে আটক ৩ যাত্রাবাড়ী থানা এলাকা থেকে ০৬ জন ছিনতাইকারী আটক কেশবপুরে অজ্ঞান পাটির কবলে পড়ে এক স্কুল শিক্ষকের মৃত্যু জগন্নাথপুরে স্বামীর খাটের বারিতে স্ত্রী নিহত কেরানীগঞ্জে চিকিৎসকের অবহেলায় প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ বগুড়া সদরের গোকুল ইউনিয়নের সরলপুরে গ্রাম্য শালিশে এক ব্যক্তির গালে কামড়ে রক্তাক্ত জখম,হাসপাতালে ভর্তি থানায় অভিযোগ চারঘন্টার ব্যবধানে কুয়াকাটায় হোটেল থেকে পর্যটকের লাশ উদ্ধার কেশবপুরে বিজ্ঞান বিষয়ক কুইজ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত রাজশাহীতে টিউমারের অস্ত্রোপচারের সময় শিশুর কিডনি কেটে ফেলার অভিযোগে চিকিৎসকের বিরুদ্ধে মামলা রাজশাহী প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে কাটাখালী পৌরসভার মেয়র আব্বাস আলীর বিরুদ্ধে পাহাড়সম অভিযোগ! জগন্নাথপুরে অশ্লীল ছবি ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেয়ার দায়ে গ্রেফতার যুবক রংপুর নগরীর গনেশপুর এলাকায় দুই বোন আত্মহত্যা করেনি হত্যা করা হয়েছে কেরানীগঞ্জে মেরিস্টোপস ক্লিনিকের ভূল চিকিৎসায় এক নারী মৃত্যু রংপুুুর নগরীর গনেশপুরে দুই বোন হত্যার দায় স্বীকার প্রেমিক রিফাতের কুয়াকাটায় আবাসিক হোটেলে জেলের রহস্যজনক মৃত্যু মৌলভীবাজার জেলা কারাগার পরিদর্শন করেন বিজ্ঞ জেলা ম্যাজিস্ট্রেট,মীর নাহিদ আহসান দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা এলাকা হতে দেশীয় অস্রসহ ০৬ জন আটক

খুলনা-৫ আসনের সংসদ সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী নারায়ণ চন্দ্র চন্দের ছোট ছেলে অভিজিৎ চন্দ্র হারপিক খেয়ে আত্মহত্যা

Spread the love

খুলনা জেলা প্রতিনিধিঃ

খুলনা-৫ আসনের সংসদ সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী নারায়ণ চন্দ্র চন্দের ছোট ছেলে অভিজিৎ চন্দ্র হারপিক খেয়ে আত্মহত্যা।

খুলনা-৫ আসনের সংসদ সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী নারায়ণ চন্দ্র চন্দের ছোট ছেলে অভিজিৎ চন্দ্র (৩৫) হারপিক খেয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেছেন।এর আগে ২০১৭ সালে নারায়ণ চন্দ্র চন্দের বড় মেয়ে জয়ন্তী রানী চন্দ ওর‌ফে বে‌বিও এমন ঘটনা ঘটান।গতকাল ২২ জানুয়ারি ২০২০ ইং তারিখ বুধবার সকালে খুলনার ডুমুরিয়ার নিজ বাড়িতে হারপিক খেয়ে অসুস্থ হন অভিজিৎ চন্দ্র ।স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসার পর বিকালে হেলিকপ্টারে তাকে ঢাকায় এনে স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।সেখানেই রাতে তার মৃত্যু হয়।অভিজিতের বড় ভাই রাজশাহী বিশ্ববিদ্যা লয়ের অধ্যাপক বিশ্বজিৎ চন্দ্র  এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।তিনি জানান, তার ভাই বেশ কিছু দিন ধরে মানসিক বিকারগ্রস্ত ছিলেন।এ কারণে এ ঘটনা ঘটিয়েছেন।তার মরদেহ খুলনায় ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি চলছে।অভিজিৎ চন্দ্র চন্দ খুলনা জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছিলেন।সংসদ সদস্য নারায়ন চন্দ্র বলেন, অভিজিৎ বিবাহিত, সে দুই সন্তানের বাবা।বেশ কিছুদিন ধরেই সে মানসিকভাবে অসুস্থ ছিল।এ কারণে তাকে চিকিৎসাও দেয়া হয়েছে।খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সহকারি রেজিষ্টার ডা. খালেদ মাহমুদ জানান, তার শরীরে রক্তের চাপ দ্রুত কমছিল।তাকে হাসপাতালের আইসিইউতে রেখে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেয়া হয়।

প্রাইভেট ডিটেকটিভ/২৩ জানুয়ারি ২০২০/ইকবাল

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ