April 17, 2019, 5:09 pm

শিরোনাম :
তিন উপায়ে চোখ রক্ষা করুন স্মার্টফোন থেকে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বারবার বিকৃত হয়েছে: রেলমন্ত্রী মুজিবনগর দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা আগামী সপ্তাহ থেকে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বয়ে যেতে পারে তাপপ্রবাহ নুসরাতের খুনিদের আইনি সহায়তা না দেওয়ার ঘোষণা ফেনীর আইনজীবীদের রাজনীতিবিদদের ব্যর্থতায় আক্ষেপ ঝরলো ফখরুলের কণ্ঠে জাহালমের কারভোগের পেছনে জড়িতদের দেখা হবে: হাইকোর্ট ভবন ভাঙতে সময়ের আবেদন প্রত্যাহারে বিজিএমইএর সভাপতিকে নোটিশ দেশে শিশু মৃত্যুর হার ৭৫ শতাংশ কমেছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী তিতাসের ২২ খাতে দুর্নীতি চিহ্নিত করে মন্ত্রণালয়ে প্রতিবেদন দিয়েছে দুদুক

কক্সবাজারে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অ্যাঞ্জেলিনা জোলি

Spread the love

কক্সবাজারে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অ্যাঞ্জেলিনা জোলি

ডিটেকটিভ নিউজ ডেস্ক

জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থার (ইউএনএইচসিআর) বিশেষ দূত ও হলিউড অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলি কক্সবাজারের রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন করছেন। রোহিঙ্গা শরণার্থীদের দেখতে গতকাল সোমবার সকাল সাড়ে ১০টায় নভোএয়ারের বিমানে করে কক্সবাজার পৌঁছান এই তারকা। এরপর তিনি সড়কপথে টেকনাফ রোহিঙ্গা ক্যাম্প পৌঁছে ক্যাম্প পরিদর্শন করেন। সেখানে রোহিঙ্গা পরিস্থিতি দেখার পর হোটেল রয়েল টিউলিপে রাত্রীযাপন করে আজ মঙ্গলবার উখিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন করবেন তিনি। হলিউড অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলি ২০১২ সালে থেকে ইউএনএইচসিআরের বিশেষ দূত হিসেবে কাজ করছেন। এর আগে রোহিঙ্গা শিশুদের দেখতে এসেছিলেন জাতিসংঘের শুভেচ্ছা দূত প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। ইউএনএইচসিআরের কর্মকর্তারা জানান, রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ইউএনএইচসিআর পরিচালিত বিভিন্ন কার্যক্রম পরিদর্শনের পাশাপাশি জোলি সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক ও রোহিঙ্গাদের সঙ্গে কথা বলবেন। কক্সবাজার থেকে ফেরার পর ঢাকা ত্যাগ করার আগে বুধবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও পররাষ্ট্র মন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে পারেন এই বিশেষ দূত। জাতিসংঘের শরণার্থী সংস্থা ইউএনএইচসিআরের সঙ্গে কাজ করা জোলি সংস্থাটিতে ২০১২ সালের এপ্রিলে বিশেষ দূত হিসেবে যোগ দেন। ২০০১ সাল থেকে তিনি শুভেচ্ছা দূত হিসেবে ছিলেন। নিজের ভূমিকার মাধ্যমে জোলি বিশ্বের বিভিন্ন সংকট-ব্যাপক মানুষের স্থানচ্যুত বা বাস্তুচ্যুত হওয়ার ব্যাপারে ইউএনএইচসিআরের প্রতিনিধিত্ব করেন। এ ছাড়া এই হলিউড অভিনেত্রী বৈশ্বিক শরণার্থী বিষয়ক বিভিন্ন আলোচনায় নীতি নির্ধারণী পর্যায়ে থাকেন। বিরামহীনভাবে কাজ করে যাওয়া অ্যাঞ্জেলিনা জোলি এর আগে প্রায় ৬০টির মতো মাঠ পর্যায়ের মিশন পরিদর্শন করেছেন এবং নিজেকে বস্তুচ্যুত বা শরণার্থীদের জন্য আন্তর্জাতিক পর্যায়ে প্রভাবকের পর্যায়ে নিতে সক্ষম হয়েছেন।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ