February 25, 2020, 2:55 pm

শিরোনাম :
মুজিববর্ষের অঙ্গীকার হিসেবে সবার জন্য নিরাপদ ও পুষ্টিকর খাদ্য নিশ্চিত করতে সকলে একসাথে কাজ করার জন্য কৃষিমন্ত্রী ড.মোঃ আব্দুর রাজ্জাক এমপির আহবান কলাপাড়ায় সততা সংঘের সমাবেশ অনুষ্ঠিত নাভারন হাইওয়ে পুলিশের দুর্নীতি নাভারন-সাতক্ষিরা সড়কটি বৃষ্টির দিনে মানুষের কাছে বিষফোঁড়ায় পরিণত সুন্দরগঞ্জে গৃহবধূর আত্মহত্যা গাইবান্ধায় ১৫০ ইট ভাটা অবৈধভাবে চলছে ! কুয়াকাটায় ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে ৮টি খাবার হোটেলকে জরিমানা শার্শার বাগআঁচড়ায় শরীরে অভিনব কায়দায় রাখা ফেন্সিডিল সহ ১যুবক আটক আদমদীঘিতে কৃষক মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত পাবনার চাটমোহর উপজেলার শ্রেষ্ঠ চিকিৎসক হলেন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডা. রুহুল কুদ্দুস ডলার নতুন প্রধানমন্ত্রী নিয়োগে সিদ্ধান্ত নেয়ার আগে সব এমপিদের সাক্ষাৎকার নিচ্ছেন মালয়েশিয়ার রাজা আবদুল্লাহ রিয়াদউদ্দিন

আজ আদালতে যাচ্ছেন খালেদা জিয়া

Spread the love

আজ আদালতে যাচ্ছেন খালেদা জিয়া

ডিটেকটিভ নিউজ ডেস্ক                

 

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট ও জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া আজ বৃহস্পতিবার আদালতে যাবেন। গতকাল বুধবার খালেদা জিয়ার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া ও জাকির হোসেন ভূঁইয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। সানাউল্লাহ মিয়া জানান, কাল জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলার আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য দিন নির্ধারিত রয়েছে। এদিন রাজধানীর বকশীবাজার এলাকার আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে স্থাপিত ঢাকার বিশেষ জজ আদালতে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য দিন ধার্য রয়েছে। খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলা থেকে জানা যায়, ২০০৫ সালে কাকরাইলে সুরাইয়া খানমের কাছ থেকে ‘শহীদ জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট-এর নামে ৪২ কাঠা জমি কেনা হয়। কিন্তু জমির দামের চেয়ে অতিরিক্ত এক কোটি ২৪ লাখ ৯৩ হাজার টাকা জমির মালিককে দেওয়া হয়েছে বলে কাগজপত্রে দেখানো হয়, যার কোনো বৈধ উৎস ট্রাস্ট দেখাতে পারেনি। জমির মালিককে দেওয়া ওই অর্থ ছাড়াও ট্রাস্টের নামে মোট তিন কোটি ১৫ লাখ ৪৩ হাজার টাকা অবৈধ লেনদেনের তথ্য পাওয়া গেছে। ২০১০ সালের ৮ আগস্ট জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্টের নামে অবৈধভাবে অর্থ লেনদেনের অভিযোগ এনে খালেদা জিয়াসহ চারজনের নামে তেজগাঁও থানায় দুর্নীতির অভিযোগে এ মামলা করেছিলেন দুর্নীতি দমন কমিশনের সহকারী পরিচালক হারুন-অর-রশিদ। এ মামলার অপর আসামিরা হলেন খালেদা জিয়ার সাবেক রাজনৈতিক সচিব হারিছ চৌধুরী, হারিছের তখনকার সহকারী একান্ত সচিব ও বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌচলাচল কর্তৃপক্ষের (বিআইডব্লিউটিএ) নৌনিরাপত্তা ও ট্রাফিক বিভাগের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক জিয়াউল ইসলাম মুন্না এবং ঢাকার সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকার একান্ত সচিব মনিরুল ইসলাম খান।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ