June 4, 2020, 12:32 am

শিরোনাম :
সুস্থ আছেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন আমি কেবলমাত্র আল্লাহকে জবাব দিতে বাধ্য – অভিনেত্রী জাইরা ওয়াসিম দারাজ বাংলাদেশে ৫০০ কোটি টাকা বিনিয়োগ করবে বরিশালে নতুন করে আরও ৫০ জন মহামারী মরন ব্যাধী করোনায় আক্রান্ত চীনা মহামারী মরন ব্যাধী করোনা মেডিকেল টিম ঢাকায় আসছে ৮ জুন সোমবার গুরুদাসপুরে ব্যাবসায়ীর স্ত্রীর সাথে ছাত্রলীগ নেতার পরকীয়া; গণধোলাই দিয়ে ১০ লাখ টাকা কাবিনে বিয়ে নাটোরের বাগাতিপাড়ায় করোনা উপসর্গ নিয়ে একজনের মৃত্যু; নমুনা সংগ্রহ সরকারদেরকে চেয়ারম্যানের সহায়তা প্রদান দক্ষিণ চট্টগ্রামের আনোয়ারায় হাইলধর ইউনিয়নের খাসখামা গ্রামে এক গৃহবধুর রহস্যজনক মৃত্যু চিলমারী সিনিয়র আলিম মাদ্রাসার ১১ শিক্ষার্থীর ভাগ্য অনিশ্চিত : দুই বছরেও পায়নি এসএসসির ফলাফল

আইফোনে ৫জি মডেম চিপ সরবরাহের তোড়জোড় শুরু

Spread the love

আইফোনে ৫জি মডেম চিপ সরবরাহের তোড়জোড় শুরু

ডিটেকটিভ প্রযুক্তি ডেস্ক

২০১৯ সালের আইফোনে ৫জি মডেম চিপ সরবরাহের জন্য স্যামসাং ও মিডিয়া টেক-এর সঙ্গে আলোচনা চালাচ্ছে অ্যাপল, শুক্রবার কোয়ালকমের বিরুদ্ধে মার্কিন ফেডারেল কমিশনের মামলায় সাক্ষ্য দেওয়ার সময় একথা বলেন অ্যাপলের এক নির্বাহী।

২০১১ থেকে ২০১৬ সাল পর্যন্ত এ ধরনের চিপের জন্য কোয়ালকমের ওপর নির্ভরশীল ছিল অ্যাপল। আইফোনকে ওয়্যারলেস নেটওয়ার্কে যুক্ত করে এই চিপ। ২০১৬ সালে ইনটেল ও কোয়ালকমের মধ্যে এই চিপ সরবরাহ ব্যবসা ভাগ করে দেয় আইফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠানটি। ২০১৮ সালে কোয়ালকমকে বাদ দিয়ে নতুন আইফোনের সব চিপ ইনটেলের কাছ থেকে নেয় অ্যাপল।

শুক্রবার অ্যাপলের নির্বাহী কর্মকর্তা টনি ব্লেভিনস বলেন, স্মার্টফোন বাজারে তাদের বড় প্রতিদ্বন্দ্বী স্যামসাং ও মিডিয়া টেক-এর কাছ থেকেও ৫জি চিপ আনার কথা ভাবছে অ্যাপল। চলতি বছরই ৫জি নেটওয়ার্ক চালুর সম্ভাবনা রয়েছে এবং বর্তমান ৪জি নেটওয়ার্ক থেকে অনেক দ্রুতগতি পাওয়া যাবে এতে– খবর রয়টার্সের।

অন্যদিকে মার্কিন ফেডারেল ট্রেড কমিশন (এফটিসি)-এর পক্ষ থেকে কোয়ালকমের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়েছে যে, প্রিমিয়াম মডেম চিপ বাজারে শীর্ষস্থান ধরে রাখতে প্রতিদ্বন্দ্বীতাবিমুখ পেটেন্ট লাইসেন্স করিয়েছে চিপ সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানটি।

শুক্রবার ক্যালিফোর্নিয়ার স্যান হোসে আদালতে ব্লেভিনস বলেন, মডেম চিপের জন্য অনেক আগে থেকেই একের অধিক সরবরাহকারীর সঙ্গে চুক্তি করার কথা ভাবছে অ্যাপল, কিন্তু পরবর্তীতে শুধু কোয়ালকমের সঙ্গে এই চুক্তি করা হয়েছে- কারণ তারা পেটেন্ট লাইসেন্স খরচ অনেক কম নেয়।

২০১৩ সালের শেষ দিকে কোয়ালকমের সঙ্গে দর কষাকষি অ্যাপলের প্রত্যাশা মতো না হওয়ায় দ্বিতীয় আরেকটি মডেম সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান খুঁজে পেতে ‘প্রজেক্ট অ্যান্টিক’ নামের প্রকল্প চালু করে অ্যাপল।

২০১৬ এবং ২০১৭ সালে কিছু আইফোনে ইনটেলের মডেম ব্যবহার করা শুরুও করে অ্যাপল। পাশাপাশি তখন কোয়ালকমের চিপ ব্যবহারও চালিয়ে যাওয়া হয়।

৫জি মডেম কেনার ক্ষেত্রে অ্যাপল কোনো সিদ্ধান্তে পৌঁছেছে কি-না বা ২০১৯ সালে ৫জি আইফোন আনা হবে কি-না আদালতে তা নিশ্চিত করে বলেননি ব্লেভিনস।

এর আগে এক সূত্রের বরাত দিয়ে ব্লুমবার্গের প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০২০ সালের আগে এমন আইফোন উন্মোচন করা হবে না।

Facebook Comments
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ